আজ ৫ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২০শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

সময় : রাত ৩:১৫

বার : শনিবার

ঋতু : বর্ষাকাল

ইসরায়েলের লেবাননে সর্বাত্মক যুদ্ধের ঘোষণা, যা বলছে হিজবুল্লাহ ।

গাজায় আগ্রাসনের মধ্যেই এবার লেবাননে সর্বাত্মক যুদ্ধের ঘোষণা দিয়েছে ইসরায়েল। ইরান সমর্থিত সংগঠন হিজবুল্লাহর লক্ষ্যবস্তুতে হামলায় বুধবার অনুমোদন দিয়েছে তেল আবিব। এর জবাবে ইসরায়েল ও সাইপ্রাসকে কঠোর হুমকি দিয়েছেন হিজবুল্লাহ প্রধান সাঈদ হাসান নাসরাল্লাহ। তবে, লেবাননে ইসরায়েলের যুদ্ধ ঠেকাতে কূটনৈতিক প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে আমেরিকা।গাজায় আট মাসের বেশি সময় ধরে যুদ্ধ চালিয়ে যাচ্ছে ইসরায়েল। এর মধ্যে বেশ কয়েকবার লেবানন সীমান্তে সংঘাতে জড়িয়েছে ইরান সমর্থিত সশস্ত্র সংগঠন হিজবুল্লাহ ও ইসরায়েলি সেনাবাহিনী। এতে ইসরায়েলের ১৫ সেনা ও ১০ বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছে। আর হিজবুল্লাহর ৩৪৩ সদস্য প্রাণ হারিয়েছে।

মঙ্গলবার ইসরায়েলের তৃতীয় বৃহত্তম হাইফা শহরে হামলার হুমকি দেয় হিজবুল্লাহ। উড়ানো হয় একটি পর্যবেক্ষণ ড্রোন। এর পরপরই হিজবুল্লাহকে পুরোপুরি ধ্বংস করতে লেবাননে সর্বাত্মক যুদ্ধের ঘোষণা দিল তেল আবিব।

এতে অনুমোদন দিয়েছেন আইডিএফের নর্দার্ন কমান্ড মেজর জেনারেল ওরি গর্ডিন ও অপারেশন ডিরেক্টরেটের মেজর জেনারেল ওদেদ বাসিউক। ইসরায়েলি সেনাবাহিনী জানিয়েছে, গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েল ভূখণ্ডে হামাসের হামলার পর তাদের সীমান্তে হিজবুল্লাহর উপস্থিতি বরদাস্ত করবে না তারা।

এদিকে, মধ্যপ্রাচ্যে নতুন করে বাড়তি উত্তেজনা এড়াতে জোরালো উদ্যোগ নিচ্ছে আমেরিকা। লেবানন সফর করে পরিস্থিতি শান্ত করার চেষ্টা করছে মার্কিন সরকার।

ইসরায়েলের এই ঘোষণার জবাবে বুধবার এক টেলিভিশনে ভাষণ দেওয়ার সময় হিজবুল্লাহ প্রধান সাঈদ হাসান নাসরাল্লাহ বলেন, যুদ্ধ শুরু হলে ইসরায়েলের কোনো জায়গাই নিরাপদ রাখা হবে না। হামলা হতে পারে সবখানে। তাদের সহায়তা করছে সাইপ্রাস। তারা তাদের বিমানবন্দর ও বিভিন্ন ঘাঁটি ব্যবহার করতে দিচ্ছে ইসরায়েলকে। তাই তারাও হামলা থেকে রেহাই পাবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category