আজ ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩০শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

সময় : সকাল ১০:৪৯

বার : বুধবার

ঋতু : হেমন্তকাল

আশুলিয়ায় বকেয়া ভাড়া পরিশোধ না করে ওয়্যার হাউস এর মাধ্যমে জমি দখলের চেষ্টা ডিকে সুয়েটারের এমডি জাহিদের বিরুদ্ধে

ঢাকার আশুলিয়ায় একটি ওয়্যার হাউস এর বকেয়া ভাড়ার টাকা পরিশোধ না করে উল্টো ওয়্যার হাউস দখল করাসহ জমির মালিক কে হুমকি ধামকি দিয়ে হয়রানির অভিযোগ উঠেছে ডিকে সুয়েটার লিমিটেডের চেয়ারম্যান এস,এ,কিউ,এম জাহিদ এর বিরুদ্ধে।

মঙ্গলবার (২৫ অক্টোবর) সকালে সাংবাদিকদের দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগী মোর্শেদ আলম ভূইয়া। এর আগে গত ১৩ তারিখে ভুক্তভোগী মোর্শেদ আলম ভূইয়া তার বিরুদ্ধে আশুলিয়া থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করে।যাহার জিডি নং ১১৮১।

মোর্শেদ আলম ভূইয়া জানান, আশুলিয়ার জামগড়া এলাকায় ব্রুকহিল লিঃ ২০০৩ সালে ডিকে গ্রুপের চেয়ারম্যান এস.এ.কিউ.এম জাহিদের কাছে পার্কিং ও ফ্যাক্টরির জন্য মাসিক ভাড়া ২৯ হাজার ২৫০ টাকায় স্ট্যাম্পে ভাড়া চুক্তি সম্পন্ন করেন। বেশ কিছু দিন ভাড়া দেয়ার পর ডিকে গ্রুপ ভাড়া দেয়া নিয়ে গড়িমসি করতে থাকে। এক পর্যায়ে ভাড়া দেয়া বন্ধ করে দেন ডিকে গ্রুপ কর্তৃপক্ষ। ভাড়া না দেওয়াই বকেয়া ভাড়ার অংক দ্বারায় ১কোটি ৯৬ লক্ষ টাকা।

এঘটনায় ব্রুকহিল লিঃ কর্তৃপক্ষ ডিকে গ্রুপের বকেয়া ভাড়ার টাকা পরিশোধ করে ওয়্যার হাউস থেকে তাদের মালামাল সরিয়ে নেয়ার জন্য উকিল নোটিশসহ আশুলিয়া থানায় জিডি করেছেন। কিন্তু ডিকে গ্রুপের চেয়ারম্যান এস,এ,কিউ,এম জাহিদ উকিল নোটিশ, জিডি ও স্থানীয় বিচার শালিস কোন টাই তোয়াক্কা না করে তাদের কে উল্টো হুমকি ধামকি প্রদান করছে।

এদিকে ব্রুকহিল লিঃ তাদের ভাড়া না পেয়ে আর্থিক সংকটে পরে মোর্শেদ আলম ভূইয়ার কাছে উক্ত ওয়্যার হাউস এর জমি ২০২২ সালের প্রথম দিকে বিক্রি করে দেন। জমির পুর্ব মালিক ব্রুকহিল লিঃ ওয়্যার হাউসের জমি মোর্শেদ আলম ভূইয়াকে মেপে বুঝিয়ে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। জমির মালিকানা পরিবর্তন হওয়ার পর বর্তমান মালিক মোর্শেদ আলম ভূইয়া ডিকে গ্রুপ কের্তৃপক্ষকে তার জমিতে বহুতল ভবন করার জন্য ওয়্যার হাউসটি খালি করে দিতে বললে তার কথাতেও কর্নপাত না করে বিপরীতে আশুলিয়া থানায় জমির মালিক মোর্শেদ আলম ভূইয়ার বিরুদ্ধে একটি সাধারণ ডায়েরি করেন ডিকে গ্রুপের চেয়ারম্যান এস,এ,কিউ,এম জাহিদ।

মোর্শেদ আলম ভূইয়া আক্ষেপ করে আরও বলেন, তার আশুলিয়ার জামগড়াসহ বিভিন্ন জায়গায় ৭/৮টি গার্মেন্টস ভবন ভাড়া নিয়ে দেশি ও বিদেশি লোকজনের সাথে ব্যবসা করতেছি। এসব গার্মেন্টস মালিকেরা মোর্শেদ আলম ভূইয়ার আচার আচরণে সন্তুষ্ট। ডিকে গ্রুপের কর্তৃপক্ষ ডায়েরিতে উল্লেখ করে তার ওয়্যার হাউসের মালামাল যে কোন সময় লুট পাট হতে পারে। এ ঘটনা নিয়ে আশুলিয়া থানায় বসার তারিখ দিয়ে ডিকে গ্রুপের পক্ষ থেকে কেউ থানায় উপস্থিত হন নি। অন্য দিকে ওয়্যার হাউস এর ১কোটি ৯৬ লক্ষ টাকা বকেয়া ভাড়া পরিশোধ না করে এবং ওয়্যার হাউস ছেড়ে দেয়ার তারিখ ঘোষণা না করে জমির মালিককে বিভিন্ন হুমকি ধামকি দিচ্ছে।

এ ব্যাপারে ব্রুকহিল লিঃ এর মালিক কে,এম আক্তার হোসাইন বলেন, ডিকে গ্রুপ তাদের ওপর জুলুম ও অন্যায় করছে। দেশের আইন অনুযায়ী সে আমাদের ভাড়া না দিয়ে সন্ত্রাসী কায়দায় ওয়্যার হাউস দখল করে আছে। এ ভাবে চলতে থাকলে তাদের ধৈর্যের বাধ ভেঙ্গে গিয়ে জবর দখলকারীদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ালে, কোন অঘটন ঘটলে এর দায় ভার ডিকে গ্রুপের চেয়ারম্যান জাহিদ সাহেবকে নিতে হবে।

এ ঘটনা জানতে ডিকে গ্রুপের চেয়ারম্যান এস.এ.কিউ.এম জাহিদ এর সাথে মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করলেও সে মোবাইল কল রিসিভ করেন নি।

এবিষয়ে আশুলিয়া থানার উপপরিদর্শক (এসআই)
মাসুদ আল মামুন বলেন, জমির মালিক মোর্শেদ আলম ভূইয়া ডিকে গ্রুপের চেয়ারম্যান এর বিরুদ্ধে একটি জিডি করেছেন। বিষয়টি মিমাংসা করতে উভয় পক্ষকে থানায় আসতে বলা হয়েছিল। কিন্তু মোর্শেদ আলম ভূইয়া আসলেও ডিকে গ্রুপের পক্ষ থেকে কেউ আসেন নাই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category