আজ ১৩ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

সময় : বিকাল ৫:৫২

বার : শুক্রবার

ঋতু : শীতকাল

ফোবানা নাম ব্যবহারকারী অসৎ চক্রের সন্ধান!

ফোবানা নাম ব্যবহারকারী অসৎ চক্রের সন্ধান!

ফেডারেশন ওফ বাংলাদেশী এসোসিয়েশনস ইন নর্থ আমেরিকা (ফোবানা) নাম ব্যাবহার করে উত্তর আমেরিকা ও বাংলাদেশে মানুষদের বিভ্রান্তকারী একটি সক্রিয় অসৎ চক্রের সন্ধান পেয়েছে আমাদের নিজস্ব সংবাদদাতা। সংবাদে প্রকাশ, আর্থিক অনিয়ম, সংগঠনের সুনাম ক্ষুন্ন  ও সংগঠন বিরোধী কর্মকান্ডে লিপ্ত থাকার কারণে এবছরের প্রথমদিকে কতিপয় কর্মকর্তা ও সংগঠনকে ফোবানা থেকে আজীবন ও বিভিন্ন মেয়াদের জন্য বহিষ্কার করা হয় এবং বিভিন্ন  সংবাদপেত্র তা প্রকাশিত হয়।
বহিষ্কৃতগন যথাক্রমে:

১। আতিকুর রহমান ২। জাকারিয়া চৌধুরী ৩। রফিক খান। ৪। জি, আই রাসেল। ৫। শিব্বির আহমেদ। ৬। জাহিদ হোসেন।
প্রাপ্ত সংবাদে জানা যায়, উপরে উল্লেখিত ব্যাক্তিবর্গ ফোবানা থেকে বহিষ্কৃত হওয়ার পর গত জুন, জুলাই মাসে ক্যেলির্ফোনিয়া, লসএঞ্জেলস শহরে ফোবানা নামে একটি অনুষ্ঠানের ঘোষণা দেয়, (উল্লেখ্য যে ফোবানা সম্মেলনের স্বাগতিক সংগঠন ও শহর দূই বছর আগে ঘোষণা করা হয়ে থাকে) এবং উত্তর আমেরিকায় বসবাসকারী বাংলাদেশীদের মাঝে  ও বাংলাদেশে অসৎ উদ্দেশ্যে বিভ্রান্ত ছড়িয়ে ফোবানার নামে তহবিল সংগ্রহ করে এবং সংগৃহীত অর্থের সিংহভাগ আত্মসাৎ করে।

যা মূলধারার ফোবানা এক্সিকিউটিভ কমিটি প্রেস রিলিজের মাধ্যমে সবাইকে সতর্ক করেছিলো । এই চক্রটি বেশ কয়েক বৎসর যাবোদ বাংলাদেশে তাদের মনোনীত ব্যাক্তি জাকারিয়া চৌধুরীর মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যাবসা প্রতিষ্টানের কাছে অর্থ সংগ্রহ করে।

উল্লেখিত চক্রটি লসএঞ্জে্লস বারব্যাঙ্ক ম্যেরিয়ট নামক হোটেলে গত সেপ্টেম্বর মাসে  ফোবানা নামে একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করে এবং অনুষ্ঠান শেষে একাউন্টে অর্থ না থাকলেও হোটেলের সাথে   চুক্তি অনুযায়ী চেক লিখে  কেটে পড়ে, যা পরবর্তীতে ব্যাঙ্ক থেকে ফেরত আসে। হোটেল নিয়োজিত কালেকশন এজেন্সি সেই অনাদায়ী অর্থ আদায়ের জন্য এখন এই প্রতারকদের খুঁজে বেড়াচ্ছে। এই কালেকশন এজেন্সি থেকে প্রাপ্ত সেই বাউন্স চেক গুলোর কপি আমাদের কাছে এই ঘটনার প্রমাণ হিসাবে আছে।”

আমাদের সংবাদদাতা অনুসন্ধান করে জানতে পেরেছে যে, এই অসাধু চক্রটি গত ২০২১ সালে ওয়াশিংটন ডিসিতে অনুষ্ঠিত ফোবানা সম্মেলনের সময়ে আর্থিক অনিয়ম ও অর্থ আত্মসাৎ এর সাথে জড়িত থাকায় সংগঠন থেকে বহিষ্কার হয়।
আমাদের সংবাদ দাতা ফোবানার বর্তমান  নির্বাহী কর্মকর্তা টিমের সাথে  যোগাযোগ করে নিম্নলিখিত বিষয়গুলো নিশ্চিত করে।
১। ফোবানা সম্মেলনের আয়োজক সংগঠন ও শহর  দূই বছর আগে ঘোষণা করা হয়ে থাকে। (২০২৩ সালে ডালাস শহরে এবং ২০২৪ সালে ওয়াশিংটন ডিসি শহরে ফোবানা সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে)
২। কোন ব্যাক্তি ফোবানার সদস্য হতে পারে না।
৩। ফোবানার গঠনতন্ত্র অনুযায়ী সদস্যপদের জন্য  কোন সংগঠনের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে, সদস্য বিষয়ক উপকমিটি সংগঠনের যোগ্যতা পর্যালোচনা করে সুপারিশ সহ নির্বাহী কমিটিতে পাঠানো হয় এবং নির্বাহী কমিটির চূড়ান্ত অনুমোদন পেলে সদস্য পদ দেয়া হয়।
ফোবানার নির্বাহী কর্মকর্তাগন উত্তর আমেরিকায় বসবাস রত বাংলাদেশী প্রবাসীদের উক্ত চক্র সম্পর্কে সতর্ক করেন এবং সামাজিকভাবে তাদেরকে বর্জন করার অনুরোধ জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category